Foto

টানা ২০ মিনিট ধরে চলেছে গুলি


নিউজিল্যান্ডের ক্রাইস্টচার্চে আল নুর মসজিদে হামলার সময় অল্পের জন্য রক্ষা পেয়েছেন বাংলাদেশ দলের ক্রিকেটাররা। স্থানীয় সময় শুক্রবার দুপুরে জুমার নামাজের সময় ওই হামলার ঘটনা ঘটেছে। এতে বেশ কিছু মানুষ হতাহত হয়েছেন বলে বিসিসির প্রতিবেদনে বলা হয়েছে।


কী ঘটেছিল ওই মসজিদেটিতে তা এখনও পুরোপুরি জানা যায়নি। তবে প্রত্যক্ষদর্শীদের বর্ণনায় উঠে এসেছে মসজিদের ভেতরে হামলার ঘটনা।

নিউজিল্যান্ড টিভিকে একজন প্রত্যক্ষদর্শী জানিয়েছেন, তিনি একজনের ঘাড়ে গুলি করতে দেখেছেন। অন্তত ২০ মিনিট ধরে গুলি করা হয় মসজিদটিতে। এতে অন্তত ৬০জন হতাহত হয়েছেন বলে তার ধারণা।

প্রত্যক্ষদর্শীর ভাষ্যমতে, বন্দুকধারী প্রথমে হামলা চালায় পুরুষদের নামাজের কক্ষে ঢুকে। এরপর সে নারীদের নামাজের কক্ষে ঢুকে গুলি ছুড়তে শুরু করে। একজন নারী নিহত হয়েছে বলে শুনেছি।

প্যালেস্টাইনের আরেক ব্যক্তি যিনি হামলার সময় মসজিদটিতে ছিলেন তিনি বার্তা সংস্থা রয়টার্সকে বলেন, তিনটি গুলির শব্দ শুনলাম। ১০ সেকেন্ড থেমে আবার গুলি চালালো হামলাকারী। সে একটি স্বয়ংক্রিয় রাইফেল ব্যবহার করেছে; এতো দ্রুত কেউই গুলি ছুড়তে পারবে না।

বিবিসি বলছে, নিউজিল্যান্ড সফরে থাকা বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের কয়েকজন খেলোয়াড় হ্যাগলি ওভাল মাঠের কাছে আল নূর মসজিদে জুমার নামাজ পড়তে গিয়েছিলেন। এ সময় ওই হামলার মুখে পড়েন তারা। একজন মসজিদের প্রবেশ মুখে তাদের হামলার কথা জানালে তারা দ্রুত সেখান থেকে চলে যান।

বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড এক টুইট বার্তায় জানিয়েছে, বাংলাদেশের ক্রিকেটাররা প্রত্যেকেই নিরাপদে হোটেলে ফিরে গেছেন।

Facebook Comments

" বিশ্ব সংবাদ " ক্যাটাগরীতে আরো সংবাদ