Foto

দেশের উন্নয়নে সংবাদমাধ্যমের স্বাধীনতা জরুরি: তথ্যমন্ত্রী


সোমবার সাংবাদিকদের দুইটি সংগঠনের দেওয়া সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে এসে তিনি বলেন, “যেকোনো দেশের উন্নয়নে দরকার সংবাদমাধ্যমের স্বাধীনতা। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সেটা নিশ্চিত করেছেন। “আরও কিছু করার থাকলে সেটাও আমরা করব। সাংবাদিকদের কল্যাণে কাজ করা আমার দায়িত্ব।”


দুপুরে বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়ন (বিএফইউজে) ও ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়ন (ডিইউজে) এই সংবর্ধনার আয়োজন করে।

সদ্য তথ্যমন্ত্রীর দায়িত্ব নেওয়া হাছান মাহমুদ বলেন, “সমালোচনা যেন গঠনমূলক হয় সেজন্য সবার সতর্ক থাকতে হবে। সমালোচনায় যেন রাষ্ট্রের কল্যাণ হয়।

“অবশ্যই সমালোচনা হবে। দায়িত্ব থাকলে সমালোচনা হবে। সমালোচনা পথচলাকে শাণিত করে। সমালোচনা যেন গঠনমূলক হয় সেজন্য আমরা সবাই সতর্ক থাকব।”

তিনি বলেন, আওয়ামী লীগের নির্বাচনী প্রতিশ্রুতি অনুসারে সাংবাদিকদের জন্য আবাসনের ব্যবস্থা গ্রহণের প্রক্রিয়া শুরু করা হবে। আগামী ২৮ জানুয়ারির মধ্যে নবম ওয়েজবোর্ড বাস্তবায়নের প্রজ্ঞাপন জারির বিষয়ে যা যা করতে হয় করা হবে।

তথ্যমন্ত্রী বলেন, “আমার আজকের অবস্থানে আসার পেছনে সাংবাদিকদের গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রয়েছে।”

তিনি বলেন, গণমাধ্যম যেমন রাষ্ট্রের কল্যাণে কাজ করতে পারে তেমনি অপসাংবাদিকতার মাধ্যমে রাষ্ট্রের বড় ধরনের ক্ষতি হতে পারে। এ জন্য বিএফইউজে ও ডিইউজে নেতাদের অপসাংবাদিকদের বিরুদ্ধে সংগঠনের পক্ষ থেকে ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে।

বিএফইউজে সভাপতি মোল্লা জালালের সভাপতিত্বে ও ডিইউজে সাধারণ সম্পাদক সোহেল হায়দার চৌধুরীর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে বিএফইউজে মহাসচিব শাবান মাহমুদ, ডিইউজের সহ-সভাপতি খন্দকার মোজাম্মেল হক, যুগ্ম মহাসচিব আবদুল মজিদ, ডিইউজের যুগ্ম মহাসচিব আকতার হোসেন, আওয়ামী লীগের উপ-প্রচার সম্পাদক আমিনুল ইসলাম আমিন প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।

Facebook Comments

" জাতীয় খবর " ক্যাটাগরীতে আরো সংবাদ