Foto

ফাইনালে উঠতে ২৪০ দরকার ভারতের


এক টিকেটে দুই ম্যাচ উপভোগ করা হয়নি দর্শকদের। তবে ফুটবলের শহর ম্যানচেস্টারের ওল্ড ট্রাফোর্ডে দুই দিন এক টিকেটে একই সেমিফাইনাল ম্যাচ দেখেছেন দর্শকরা। বৃষ্টির বাগড়া অবশ্য ম্যাচের উচ্ছ্বাস পানসে করেছে। ছুটি-ছাটা করে একদিনের সময় বের করা অনেক দর্শকের আক্ষেপ হয়ে থাকবে ভারত-নিউজিল্যান্ড সেমিফাইনালটি। তবে মঙ্গলবারের গুমড়া মুখো আকাশ বুধবার হেসেছ। সেই বা কম কি! মঙ্গলবার কিউইদের ইনিংসের ৪৬.১ ওভার মাঠে গড়ায়। বাকিটা বুধবার রিজার্ভ ডে'তে। নিউজিল্যান্ড ফাইনালে ওঠার লড়াইয়ে ভারতকে দিতে পেরেছে ২৪০ রানের লক্ষ্য।


মঙ্গলবার বাংলাদেশ সময় সন্ধ্যা সাতটায় ওল্ড ট্রাফোর্ডে বৃষ্টি নামে। পৌনে এগারটায় আবার বৃষ্টি শুরু হলে উইকেট ঢেকে দেওয়া হয়। সিদ্ধান্ত নেওয়া হয় বুধবার রিজার্ভ ডে’তে ম্যাচ খেলানোর। এরপর বুধবার স্থানীয় সময় সকাল সাড়ে দশটায় শুরু হয় ম্যাচের বাকি অংশ। আগের দিন ৪৬.১ ওভারে কিউইরা ৫ উইকেট হারিয়ে তোলে ২১১ রান। শেষ পর্যন্ত ৫০ ওভারে আট উইকেট হারিয়ে তুলতে পারে ২৩৯ রান।

রস টেইলর দলের হয়ে সর্বোচ্চ ৭৪ রান করে রান আউট হন। তার আগে অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসন খেলেন ৬৭ রানের ইনিংস। এই দু’জনের ব্যাটেই লড়াইয়ের পুঁজি পায় গ্রুপ পর্বে টানা তিন ম্যাচ হারা নিউজিল্যান্ড। এর আগে মার্টিন গাপটিল ১৪ বল খেলে ১ রান করে আউট হন। অন্য ওপেনার হেনরি নিকোলাস আউট হন ২৮ রান করে। জিমি নিশাম ১২ এবং কলিন ডি গ্রান্ডহোম ১৬ করে ফিরে যান। টম ল্যাথাম-মিশেল সাটনাররা শেষ দিকে যথাক্রমে ১০ ও ৯ রান করেন।

ভারতের হয়ে এ ম্যাচে দারুণ বোলিং করেন ভুবনেশ্বর কুমার। তিনি ১০ ওভার বোলিং করে ৪৩ রানে নেন ৩ উইকেট। মার্টিন গাপটিল, টম ল্যাথাম এবং কলিন ডি গ্রান্ডহোমকে ফেরান তিনি। জাসপ্রিত বুমরাহ উইকেট নিয়েছেন মাত্র একটি। তবে বল হাতে রান চেক দেওয়া এবং প্রতিপক্ষকে চাপে রাখার কাজটি নিপুনভাবে করেছেন তিনি। ১০ ওভারে দিয়েছেন মাত্র ৩৯ রান। রবিন্দ্র জাদেজাও ১০ ওভারে ৩৪ রান দিয়ে নিয়েছেন এক উইকেট। যুজবেন্দ্র চাহাল এবং হার্ডিক পান্ডিয়া নেন একটি করে উইকেট।

Facebook Comments

" ক্রিকেট নিউজ " ক্যাটাগরীতে আরো সংবাদ