Foto

হালদা থেকে ধরা ৭ কেজির ডিমওয়ালা রুই উদ্ধার


প্রশাসনের নিষেধাজ্ঞা সত্ত্বেও হালদা নদীতে মাছ ধরা বন্ধ হচ্ছে না। প্রশাসনের চোখ এড়িয়ে বুধবার এই নদী থেকে শিকার করা ৭ কেজি ওজনের একটি ডিমওয়ালা রুই মাছ উদ্ধার করা হয়েছে।


বুধবার বিকেল সাড়ে ৩টায় চট্টগ্রামের হাটহাজারীর উত্তর মাদার্শা ইউনিয়নের আমতোয়া এলাকার মির্জা আলীর নতুন বাড়ি থেকে মাছটি উদ্ধার করা হয়। ওই বাড়ির প্রয়াত গুরা মিয়ার ছেলে শামসু মিয়া হালদা নদীতে ঘেরা জাল বসিয়ে বুধবার ভোটে মাছটি ধরেন।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, শামসু বুধবার ভোরে হালদা নদীতে ঘেরা জাল বসিয়ে ২৮ ইঞ্চি দৈর্ঘ্য ও ৭ কেজি ওজনের রুই মাছটি ধরেন। পরে মাছটি বিক্রির জন্য বস্তায় ভরে অন্যত্র নেওয়ার চেষ্টা করেন তিনি। তবে উত্তর মাদার্শা ইউপি চেয়ারম্যান মঞ্জুর হোসেন চৌধুরী মাসুদ খবর পেয়ে শামসুর বাড়িতে পরিষদের গ্রাম্য পুলিশ ও দফাদার পাঠায়। পুলিশ আসার খবর পেয়ে আগেই শামসু ঘর থেকে পালিয়ে যায়। পরে তার ঘর থেকে বস্তায় মোড়ানো রুই মাছটি উদ্ধার করে হাটহাজারী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার (ইউএনও) কাছে পাঠানো হয়।

এ ঘটনায় শামসুর বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন হাটহাজারীর ইউএনও রুহুল আমিন। তিনি সমকালকে বলেন, "শামসুর বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে। মা রুই মাছটি আপাতত ফ্রিজে সংরক্ষণ করা হচ্ছে। বৃহস্পতিবার মাছটি চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের হালদা রিসার্চ ল্যাবরেটরিতে সংরক্ষণের জন্য পাঠানো হবে।"

 

Facebook Comments

" জাতীয় খবর " ক্যাটাগরীতে আরো সংবাদ